স্বাস্থ্য পরামর্শ

জিরাতেই জিরো ফিগার

জিরাতেই জিরো ফিগার

ভাবছেন শরীরের ওজনটা বেড়ে গেছে কমানো দরকার। কিন্তু ওজন কমাতে গেলে তো প্রচুর ব্যায়াম বা কঠিন ডাইট করতে হবে। এটি বেশ কষ্টসাধ্য ব্যাপার। আর এ কারণে ওজনটা বাড়তেই থাকে প্রতিনিয়ত। এভাবে ওজন বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে দেখা দেয় নানা শারীরিক সমস্যা। তবে এখন শারীরের ওজন নিয়ে দুশ্চিন্তা মাথা থেকে ঝেরে ফেলুন। কারণ হাতের কাছেই পাবেন ওজন কমানোর ওষুধ। হ্যাঁ শুধু জিরা খেয়ে আপনি কমিয়ে ফেলতে পারেন শরীরের অতিরিক্ত মেদ! তাহলে জেনে নিন জিরার সব গুণাবলি।

আমাদের এনড্রয়েড মোবাইল এপস। বাছাই করা সেরা ১০১ পিঠার রেসিপি। ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুণ!

ওজন কমাবে

১ গ্লাস পানির মধ্যে ২ চামচ আস্ত জিরা ভিজিয়ে রাখতে হবে সারা রাত। সকালে সে পানিটি ছেঁকে তার মধ্যে অল্প পরিমাণে লেবুর রস মিশিয়ে খালি পেটে এ পানিটি খেতে হবে। ওজন কমাতে অন্তত তিন সপ্তাহ এ মিশ্রণটি খেতে হবে। এছাড়া প্রতিদিন ৫ গ্রাম দই এর সাথে ১ চামচ গুড়া জিরা মিশিয়ে খেলেও ওজন কমবে।

পেটের মেদ কমাতে

পেটের মেদ কমানোর জন্য সিদ্ধ সবজির ওপর আদা কুচি, লেবুর রস আর জিরার গুঁড়া ছিটিয়ে দিন এবং রাতের খাবার হিসেবে খান। পেটের মেদ কমানোর এটি একটি সহজ উপায়।

হজম ক্ষমতা বাড়ায়

জিরা হজম শক্তি বাড়াতে সাহায্য করে।পেটে গ্যাস জমা কমায় ও বদ হজম থেকেও মুক্তিদেয়।এক গ্লাস পানিতে এক চা চামচ জিরা জ্বাল দিতে হবে। তারপর এর রং বাদামী হয়ে আসলে নামিয়ে ফেলতে হবে। ঠান্ডা হয়ে এলে এটি পান করতে হবে। এটি দিনে ৩-৪ বার পান করতে হবে। এ মিশ্রণটি পেট ব্যথা কমাতে সাহায্য করবে এবং হজমশক্তি বৃদ্ধি করবে।

পেট পরিষ্কার করবে

অল্প পরিমাণের আস্ত জিরা ভেজে গুঁড়ো করে নিবে হবে। এরপর ১ গ্লাস পানি, ১ চামচ মধু ও গুঁড়া জিরা এক সাঙ্গে মিশিয়ে প্রতিদিন সকালে খালি পেটে খেতে হবে। এছাড়া জিরার চাও কিন্তু পেটের জন্য বেশ উপকারী।

ঘুমের সমস্যা দূর করবে

যাদের রাতে ঘুম হয় না, তাদের জন্য জিরাপানি খুব উপকারী।নিয়মিত রাতে ঘুমানোর আগে জিরা পানি খেলে ঘুমের সমস্যা দূর হয়ে যাবে।

'সবধরনের ভিডিও রেসিপি দেখতে আমাদের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুণ!'


বিঃ দ্রঃ মজার মজার রেসিপি ও টিপস, রেগুলার আপনার ফেসবুক টাইমলাইনে পেতে লাইক দিন আমাদের ফ্যান পেজ বিডি রমণী



সর্বোচ্চ পঠিত

BD Romoni YouTube Channel
To Top